Топ-100
Back

ⓘ গভর্নমেন্ট কলেজ অব আর্ট অ্যান্ড ক্র্যাফট, কলকাতা




গভর্নমেন্ট কলেজ অব আর্ট অ্যান্ড ক্র্যাফট, কলকাতা
                                     

ⓘ গভর্নমেন্ট কলেজ অব আর্ট অ্যান্ড ক্র্যাফট, কলকাতা

গভর্নমেন্ট কলেজ অফ আর্ট অ্যান্ড ক্রাফট, কলকাতা কলকাতায় অবস্থিত এবং ভারতের আর্ট কলেজগুলোর মধ্যে প্রাচীনতম। ১৮৫৪ খ্রিস্টাব্দের ১৬ অগস্ট চিতপুরের গরানহাটায় এই কলেজ প্রতিষ্ঠিত হয়েছিল; উদ্দেশ্য ছিল সকল বর্গের নবীনকে বৈজ্ঞানিক পদ্ধতির ভিত্তিতে ঔদ্যোগিক শিল্পকলা শেখানোর জন্যে একটা শিক্ষা প্রতিষ্ঠানের প্রতিষ্ঠা। পরবর্তীকালে পুনর্নামকরণ করা হয় গভর্নমেন্ট স্কুল অফ আর্ট এবং ১৯৫১ খ্রিস্টাব্দে গভর্নমেন্ট কলেজ অব আর্ট অ্যান্ড ক্রাফট, কলকাতা এই নামে পরিচিত হয়।

                                     

1. ইতিহাস

১৮৫৪ খ্রিস্টাব্দের ১ অগস্ট গরানহাটায় এক বেসরকারি আর্ট স্কুল হিসেবে এটা চালু হয়েছিল। ১৮৫৪ খ্রিস্টাব্দের নভেম্বরে মতিলাল শীলের কলুটোলার বাড়িতে এই স্কুল স্থানান্তরিত হয়। ১৮৫৯ খ্রিস্টাব্দে গ্যারিক প্রধান শিক্ষক হিসেবে যোগ দিয়েছিলেন। ১৮৬৪ খ্রিস্টাব্দে সরকার এটা গ্রহণ করে এবং ওই বছরেরই ২৯ জুন হেনরি হোভার লক এর অধ্যক্ষ হিসেবে কার্যভার গ্রহণ করেছিলেন। সত্বর এটার পুনর্নামকরণ করা হয়েছিল গভর্নমেন্ট স্কুল অব আর্ট। লক এই শিক্ষা প্রতিষ্ঠানের অধ্যয়নের পাঠক্রম তৈরির জন্যে এক ব্যাপক পরিকল্পনা করেছিলেন। ১৮৮০ খ্রিস্টাব্দের দশকে ১৬৬, বোবাজার স্ট্রিটে এই স্কুলের স্থান বদল করা হয়েছিল। লকের মৃত্যুপর ১৮৮৫ খ্রিস্টাব্দের ২৫ ডিসেম্বর এম স্কামবার্গ নতুন অধ্যক্ষ হন। সহকারী অধ্যক্ষের এক নতুন পদ সৃষ্টি করা হয়েছিল এবং ১৮৮৬ খ্রিস্টাব্দের ২৯ জানুয়ারি ওই পদে ইতালীয় শিল্পী ও. গিলার্ডি যোগদান করেছিলেন। ১৮৯২ খ্রিস্টাব্দের ফেব্রুয়ারিতে এই প্রতিষ্ঠানকে স্থানান্তরিত করা হয়েছিল ভারতীয় জাদুঘর লাগোয়া এখনকার চত্বরে। অধ্যক্ষের মৃত্যুপর ১৮৯৬ খ্রিস্টাব্দের ৬ জুলাই জোবিন্স আর্নেস্ট বিনফিল্ড হ্যাভেল এই স্কুলের অধ্যক্ষরূপে যোগদান করেছিলেন।

                                     

1.1. ইতিহাস অধ্যক্ষরূপে মুকুল দে

১৯২৮ খ্রিস্টাব্দের ১১ জুলাই মুকুল চন্দ্র দে কলেজের অধ্যক্ষ হয়েছিলেন। ১৯৩১ খ্রিস্টাব্দের অক্টোবর মাসে আওয়ার ম্যাগাজিন নামে কলেজ নিজস্ব ত্রৈমাসিক পত্রিকা আরম্ভ করেছিল, যাতে কলেজের ছাত্র এবং অনুষদের কাজের প্রতিলিপি প্রকাশিত হয়েছিল। মুকুল দে ১৯৪৩ খ্রিস্টাব্দ পর্যন্ত এই শিক্ষা প্রতিষ্ঠানের অধ্যক্ষ ছিলেন।

                                     

1.2. ইতিহাস অধ্যক্ষরূপে চিন্তামণি কর

চিন্তামণি কর ১৯৬০ এবং ১৯৭০ খ্রিস্টাব্দের দশকে দীর্ঘ সময়কালের জন্যে এই কলেজের প্রধান হিসেবে ছিলেন, যিনি ১৯৫৬ খ্রিস্টাব্দের ১ অগস্ট অধ্যক্ষ নিযুক্ত হয়েছিলেন।

                                     

2. প্রাক্তনী

গভর্নমেন্ট কলেজ অব আর্ট অ্যান্ড ক্র্যাফট, কলকাতার বিশিষ্ট প্রাক্তনীদের মধ্যে রয়েছেন: নন্দলাল বোস, যামিনী রায়, ছত্রপতি দত্ত, শশী কুমার হেশ, লাইন সিং বঙ্গদেল, অতুল বোস, দেবীপ্রসাদ রায়চৌধুরী, গোপাল ঘোষ, মুকুল দে, চিন্তামণি কর, মৃণাল কান্তি দাস, সত্যেন ঘোষাল, উপেন্দ্র মহারথী, সোমনাথ হোড়, রাজেন তারাফদার, জয়নুল আবেদিন, রণনয়ন দত্ত, হেমেন মজুমদার, হরেন দাস, শানু লাহিড়ী, গণেশ পাইন, গণেশ হালুই, সুনীল দাস, বাঁধন দাস, সমীর মণ্ডল, অশোক ভৌমিক, যোগেন চৌধুরী, সুদীপ রায়, পুলক বিশ্বাস, নিরঞ্জন প্রধান, অনন্ত মণ্ডল, পরেশ মাইতি, অখিল চন্দ্র দাস, মৃণাল কান্তি রায়, শুদ্ধসত্ত্ব বসু, সনাতন দিন্দা, সুমন্ত্র সেনগুপ্ত ও বিমান বিহারী দাস।